স্মার্টফোনের ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি কতটা নিরাপদ?

Fast charging technology of smart phone

[et_pb_section fb_built=”1″ _builder_version=”4.9.7″ _module_preset=”default” custom_padding=”12px|||||”][et_pb_row _builder_version=”4.9.7″ _module_preset=”default” custom_margin=”6px|auto||auto||” custom_padding=”16px|||||”][et_pb_column type=”4_4″ _builder_version=”4.9.7″ _module_preset=”default”][et_pb_text _builder_version=”4.9.7″ _module_preset=”default”]

প্রিয় বন্ধুরা, আমাদের সকলের প্রয়োজনীয় এবং শখের স্মার্টফোনের ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি নিয়ে আজ কথা বলবো।

সময়ের সাথে সাথে স্মার্টফোনের হার্ডওয়্যার এবং সফটওয়্যারের যে হারে উন্নতি হয়েছে সে হারে স্মার্টফোনের ব্যাটারির উন্নতি হয়নি। প্রতিনিয়ত স্মার্টফোনে নতুন নতুন ফিচার যোগ হচ্ছে, কিন্তু ব্যাটারির ক্ষেত্রে খুবই অল্প ক্যাপাসিটি বা সাইজ বেড়েছে। ব্যাটারির এই সল্প সাইজ বা ক্যাপাসিটি বাড়া ছাড়া আর কোন উন্নতি পরিলক্ষিত হয় না। আর এখান থেকেই প্রশ্ন আসতে পারে যে, স্মার্টফোনের ফাস্ট চার্জিং টেকনোলজি তাহলে কতটা নিরাপদ? ফাস্ট চার্জিং-এর ফলে কি তাহলে স্মার্টফোন বা স্মার্টফোনের ব্যাটারি ব্লাস্ট হতে পারে? এই ফাস্ট চার্জিং-এর ফলে ব্যাটারি বা এর লাইফটাইমের উপর কোন বিরূপ প্রভাব পড়বে কি? যদি কোন সমস্যাই না থাকে তাহলে অ্যাপল বা স্যামসাং-এর মত বড় বড় ব্র্যান্ড ফাস্ট চার্জিং বা কুইক চার্জিং টেকনোলজি ইন্ট্রোডিউস করতে এতো দেরি করলো কেন?

ফাস্ট চার্জিং ছাড়াও ব্যাটারি নিয়ে আমাদের মনে নানান প্রশ্ন ঘুরপাক করে থাকে, যেমনঃ
* মোবাইল কেনার পর ব্যাটারি প্রথমে কতক্ষণ চার্জ করতে হবে?
* সাধারণভাবে মোবাইলের ব্যাটারি কিভাবে চার্জ করতে হবে?
* ব্যাটারি বেশি চার্জ করলে কোন ক্ষতি হবে কি না?
* সারা রাত ধরে মোবাইল চার্জ করলে মোবাইল বা ব্যাটারির কোন ক্ষতি হবে কি না?
* ১০০% চার্জ হয়ে যাওয়ার পর চার্জার প্লাগ-ইন করা থাকলে অতিরিক্ত প্রবাহিত চার্জে মোবাইল বা ব্যাটারির কোন ক্ষতি হবে কি না?

[/et_pb_text][/et_pb_column][/et_pb_row][/et_pb_section]

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *